জাতীয়

প্রকৌশলী বললেন, নিয়ম মেনেই রাস্তায় বাঁশ ব্যবহার করা হচ্ছে

চাঁদপুর-শরীয়তপুর ফেরি সার্ভিসের চাঁদপুর ফেরি ঘাটের ক্রসিং রাস্তা নির্মাণে বাঁশ ও নিম্নমানের ইট-বালি ব্যবহার করা হচ্ছে।

জিওটেক্সটাইলস বেগ রাস্তার দুই পাশে ফেলে ও মাঝে ইট ও বাঁশ দিয়ে তার ওপর বালি দিয়ে ৪০ফুট দৈর্ঘ ও ৪০ ফুট প্রস্তের রেমবেইচ তৈরি করে এ সংযোগ সড়কটি করা হচ্ছে। বাঁশ দিয়ে

সংযোগ সড়ক নির্মাণের কারণে স্থায়ীত্ব নিয়ে শঙ্কিত স্থানীয়রা।
যথাযথ নিয়ম ও সিডিউল অনুযায়ী কাজটি করা হচ্ছে। এই কাজে বাঁশ ব্যবহারের উল্লেখ রয়েছে। সেই নিয়ম অনুযায়ী বাঁশ ব্যবহার করা হচ্ছে বলে ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান মেসার্স লুবাবা এন্টারপ্রাইজের

প্রতিনিধিরা জানান। এ কাজের তদারকি করছেন বিআইডাব্লিউটিএর উপ-সহকারী প্রকৌশলী ফজয়জুল্লাহ। যদি কাজ চলাকালে বিআইডব্লিউটিএর কাউকে দেখা যায়নি। এ ব্যাপারে বিআইডব্লিটিএর নির্বাহী প্রকৌশলী আমজাদ হোসেন বলেন,

সিডিউল মতো কাজ হচ্ছে। এই কাজে বাঁশ ব্যবহার করা হচ্ছে নিয়ম অনুযায়ী। ইট নিম্নমানের কথা স্বীকার করে বলেন, পাঁচ গাড়ির মধ্যে এক গাড়ির ইট নিম্নমানের পড়তে পারে। চাঁদপুর বিআইডব্লিউটিএ সূত্রে জানা গেছে, সারা দেশেই ফেরিঘাটের ক্রস

রাস্তা নির্মাণে বাঁশ ব্যবহার করা হয়। এসব সড়ক ক্ষণস্থায়ী হওয়ায় এবং ঘন ঘন নদীতে ভেঙে যাওয়ায় সরকারি অর্থের সাশ্রয় করতে বাঁশের ব্যবহার করা হয়।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close